প্রচ্ছদ খেলাধুলা নেইমারের চেয়ে ভালো ডেমবেলে!

নেইমারের চেয়ে ভালো ডেমবেলে!

100
0

এ মৌসুমের শুরুতেও গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল, বার্সেলোনায় আসতে চাচ্ছেন নেইমার। পিএসজিতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত যে ভুল ছিল সেটা বুঝতে পেরে নাকি গোটা কয়েকবার বার্সেলোনা কর্তাদের ফোনও দিয়েছিলেন ব্রাজিল ফরোয়ার্ড। তবে বার্সেলোনার সভাপতি যা বলেছেন, তাতে নেইমারের কাতালান ক্লাবে ফেরার দরজাটা আজীবনের জন্যই বন্ধ হয়ে গেছে। মেসির ছায়া থেকে বেরোতে চাওয়া নেইমারকে নাকি টপকে গেছেন ওউসমান ডেমবেলেও!

২০১৭ সালে বিশ্ব রেকর্ড গড়ে পিএসজিতে নাম লেখান নেইমার জুনিয়র। তাঁর সুবাদে পাওয়া ২২২ মিলিয়ন ইউরো সঙ্গে সঙ্গেই কাজে লাগিয়েছে বার্সেলোনা। বরুসিয়া ডর্টমুন্ড থেকে ১০৫ মিলিয়ন (শর্তসাপেক্ষে ১৪৫) ইউরো থেকে নিয়ে আসা হয়েছে ডেমবেলেকে। চোটের কারণে প্রথম মৌসুমে ভালো খেলতে না পারলেও এ মৌসুমে দারুণ খেলছেন এ ফরাসি তারকা। বার্সেলোনাকে বেশ কয়েকটি ম্যাচেই গুরুত্বপূর্ণ সময়ে গোল এনে দিয়েছেন। কিন্তু তাই বলে তিনি নেইমারের চেয়ে ভালো!

বার্সেলোনা সভাপতি হোসে বার্তেমেউ টিভিই-র একটি অনুষ্ঠানে এমন দাবিই করেছেন, ‘নেইমারের অর্থে ডেমবেলে ও কুতিনহোকে আনা হয়েছে। ওদের নিয়ে আমাদের একটি প্রকল্প আছে সেটা আগেই বলেছি। ডেমবেলে এখনই নেইমারের চেয়ে ভালো মানের। সে নেইমারের চেয়ে ভালো খেলোয়াড় এবং সে এর মাঝেই মানিয়ে নিয়েছে।’
বার্সা সভাপতি যেমন দাবিই করুন না কেন এ মৌসুমের পরিসংখ্যান ভিন্ন কিছু বলবে। গত ফেব্রুয়ারি থেকে মাঠের বাইরে থাকলেও এ মৌসুমে নেইমারের গোল ২০টি। আর নেইমারের চেয়ে দেড় গুণ বেশি ম্যাচ খেলেও ১৮ গোল ডেমবেলের।

শুধু ডেমবেলেকে নিয়েই সন্তুষ্ট হয়নি বার্সেলোনা। ২০১৮ এর শুরুতে নিজেদের রেকর্ড আরেকবার ভেঙে ১২০ মিলিয়ন (শর্তসাপেক্ষে ১৬০) ইউরোতে কুতিনহোকেও আনা হয়েছে। ফর্ম হারিয়ে ফেলা কুতিনহোর বার্সা ছাড়ার গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে এ মৌসুমে। বার্তেমেউ তাই তাঁকে নেইমারের চেয়ে ভালো বলে দাবি করেননি, তবে এই মিডফিল্ডারকে নিয়েও পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন, ‘কুতিনহো দারুণ খেলোয়াড়, দুর্দান্ত। সে দিন দিন ভালো হচ্ছে। বার্সার হয়ে খেলা সহজ নয়—গত মৌসুমে সে ছয় মাস ছিল এবং সে এখন পরিপূর্ণ হয়ে উঠছে। কোচ তাঁর ওপর বিশ্বাস রাখে। সে একজন বিশ্বমানের খেলোয়াড় এবং ওর কাছ থেকে আমাদের চাওয়া অনেক। সে বার্সাতেই থাকবে। সে ভিন্ন ধরনের খেলোয়াড় এবং বার্সেলোনার ভিন্ন খেলোয়াড়ই দরকার।’

এ মৌসুমেও দলবদলে ব্যস্ত সময় কাটাবে বার্সেলোনা। এর মাঝেই ফ্র্যাঙ্কি ডি ইয়ংকে (৭৫ মিলিয়ন) কিনে নিয়েছে তারা। আয়াক্স থেকে ডি লিটকেও কেনার কথা তাদের। এ ছাড়া গত মৌসুমে যাব যাব বলেও না যাওয়া আঁতোয়ান গ্রিজমানও এবার বার্সেলোনায় যাওয়ার ইচ্ছা জানিয়েছেন বলে শোনা যাচ্ছে। অন্য দুজনের ব্যাপারে বেশ ইতিবাচক শোনা গেলেও গ্রিজমানের ব্যাপারে একটু রুক্ষই শোনাল বার্তেমেউকে, ‘গ্রিজমানের ব্যাপারটা আলোচনাতেই নেই।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য যুক্ত করুন
আপনার নাম লিখুন